1. admin@chunarughat24.com : admin :
লকডাউনে কেমন আছে সাধারণ মানুষ
শনিবার, ০৮ মে ২০২১, ০৩:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
‘চীনের নিয়ন্ত্রণহীন রকেট নামিয়ে আনার পরিকল্পনা নেই যুক্তরাষ্ট্রের’ ২০ মে ‘চা শ্রমিক দিবস’ ঘোষণাসহ ১০ দফা দাবীতে স্মারকলিপি প্রদান শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ ভারী বৃষ্টিপাতে কুশিয়ারাসহ উত্তর-পূর্বাঞ্চলের প্রধান সব নদীর পানি বৃদ্ধি পাবে সোহরাওয়ার্দি উদ্যানের গাছ কাটা বন্ধে আদালতের নোটিশ জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন তিনজন বিশিষ্ট ব্যক্তি চুনারুঘাটে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় দুই বন্ধু আহত সিলেট মেরিন একাডেমীর যাত্রা শুরু: উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী চুনারুঘাটে পুলিশের ওপর হামলা, আসামী ছিনতাই চিকিৎসার্থে খালেদা জিয়ার বিদেশ যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে

লকডাউনে কেমন আছে সাধারণ মানুষ

শুহিনুর খাদেম
  • সময় : বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল, ২০২১
  • ৩৪ বার পঠিত
লকডাউনে কেমন আছে সাধারণ মানুষ

দিনটা ছিলো ১৪ এপ্রিল, বুধবার। আর এই দিনটি ছিলো পহেলা বৈশাখ আর পবিত্র রমজানের প্রথম দিন। সেদিনই আবার দেশজুড়ে কঠোর লকডাউন শুরু। এতে করে এক অন্যরকম দিন দেখলো পুরো জাতি।

দেশব্যাপী করোনাভাইরাস সংক্রমণ ও মৃত্যুর হার বেড়ে যাওয়াতে সরকারকে দ্রুততার সঙ্গে দিতে হয়েছে কঠোর নিষেধাজ্ঞা।

গতবছরের মার্চ থেকে থেকে শুরু হওয়া করোনার প্রকোপ নিয়ন্ত্রণে অপ্রয়োজনীয় নানা কর্মকাণ্ডকে সীমিত করতে হয়েছে বৃহত্তর জনস্বার্থে।

দূরপাল্লার যানবাহন বন্ধ করার পাশাপাশি প্রয়োজনীয় চলাচলে মুভমেন্ট পাস এর ব্যবস্থা করা হয়েছে। যদিও কিছু জায়গায় এই পাস নিয়ে হয়েছে ভোগান্তি।

অন্যদিকে জরুরি সেবা-কার্যক্রমের আওতায় থাকা অনেক শ্রেণি-পেশার মানুষকে জরিমানা ও অহেতুক হয়রানির খবর এসেছে গণমাধ্যম ও সামাজিক মাধ্যমে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী এ বিষয়ে আরও দায়িত্বশীল হলে বিষয়গুলো এড়ানো যেতো।

করোনার প্রকোপ নিয়ন্ত্রণে দেশের ভেতরে নেয়া নানা সিদ্ধান্ত ও পদক্ষেপে বিভিন্ন সংস্থা ও কর্তৃপক্ষের মধ্যে সমন্বয় দূর্বলতা নতুন কিছু নয়, তারপরেও বিষয়গুলোতে আরও সাবধান হওয়া দরকার বলে মনে করেন সাধারণ মানুষেরা।

আরকেটি বিষয়, তা হচ্ছে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী, দিনমজুর, রিকশাওয়ালা, ভ্রাম্যমান ফেরিওয়ালা, ভিক্ষুক থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষের প্রতিদিনের চাহিদা নিয়ে কেউ ভাবছেন কি না।

তারা কে কী করছে, কী খাচ্ছে, কীভাবে আছে এই বিষয়গুলো দেখার দায়িত্ব কার?

পবিত্র রমজান উপলক্ষে সব পরিবারেই বাড়তি প্রস্তুতি থাকে, তাদেরও আছে। কিন্তু তাদের তো নিয়মিত কর্মকাণ্ডই বন্ধ হয়ে আছে করোনা নিয়ন্ত্রণ নিষেধাজ্ঞাতে।

এই বিষয়টি সরকারের অবশ্যই গুরুত্বের সাথে দেখা দরকার। গত বছর সরকারি- বেসরকারি অনেক প্রতিষ্ঠান ও ধনাঢ্য ব্যক্তিরা ত্রাণ সাহায্য নিয়ে এগিয়ে এসেছিলেন। এ বছর সহায়তা কার্যক্রম তেমন একটা চোখে পড়ছে না।

তবে, শিল্প-কারখানার জন্য প্রণোদনা যেমন ছিল, তেমনি এবার রয়েছে কারখানা খোলা রাখার বিশেষ ব্যবস্থা।

শুধু বৃহৎ শিল্পের প্রণোদনা প্যাকেজ কর্মসূচি নিয়ে সাংবিধানিক দায়িত্ব শেষ হয় না, সমাজের শেষের সারিতে অবস্থান করা মানুষদের দিকেও নজর দিতে হবে।

সরকারের পাশাপাশি সমাজের প্রতিষ্ঠিত, অবস্থা সম্পন্ন মানুষদেরও এগিয়ে আসা উচিত, এগিয়ে আসা উচিত নানা সামাজিক ও দাতব্য সংগঠনের।

পবিত্র রমজানের এই সময়ে সবার সম্মিলিত প্রচেষ্টায় সবার মুখে খাবার থাকুক, দূর হোক করোনা মহামারী, এই আমাদের প্রত্যাশা।

Facebook Comments
এ জাতীয় আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

স্বত্ব সংরক্ষিত © 2020-2021 চুনারুঘাট
কারিগরি Chunarughat
Don`t copy text!