1. admin@chunarughat24.com : admin :
মাধবপুরের ইউএনওর স্বাক্ষর জাল করে টাকা আত্মসাৎ, পিআইও বরখাস্ত
শনিবার, ০৮ মে ২০২১, ০৩:৫৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
‘চীনের নিয়ন্ত্রণহীন রকেট নামিয়ে আনার পরিকল্পনা নেই যুক্তরাষ্ট্রের’ ২০ মে ‘চা শ্রমিক দিবস’ ঘোষণাসহ ১০ দফা দাবীতে স্মারকলিপি প্রদান শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ ভারী বৃষ্টিপাতে কুশিয়ারাসহ উত্তর-পূর্বাঞ্চলের প্রধান সব নদীর পানি বৃদ্ধি পাবে সোহরাওয়ার্দি উদ্যানের গাছ কাটা বন্ধে আদালতের নোটিশ জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন তিনজন বিশিষ্ট ব্যক্তি চুনারুঘাটে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় দুই বন্ধু আহত সিলেট মেরিন একাডেমীর যাত্রা শুরু: উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী চুনারুঘাটে পুলিশের ওপর হামলা, আসামী ছিনতাই চিকিৎসার্থে খালেদা জিয়ার বিদেশ যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে

মাধবপুরের ইউএনওর স্বাক্ষর জাল করে টাকা আত্মসাৎ, পিআইও বরখাস্ত

চুনারুঘাট
  • সময় : সোমবার, ৩ মে, ২০২১
  • ৪৬ বার পঠিত
মাধবপুরের ইউএনওর স্বাক্ষর জাল করে টাকা আত্মসাৎ, পিআইও বরখাস্ত

হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসারের (ইউএনও) স্বাক্ষর জাল করে ৭৩ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে কারান্তরীণ উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) মোহাম্মদ মাসুদুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়।

রোববার (২ মে) রাতে বরখাস্তের চিঠিটি জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহান ও মাধবপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাতেমা তুজ জোহরার কাছে পৌঁছেছে।

মাধবপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাতেমা তুজ জোহরা জানান, গতকাল রবিবার রাত এগারোটার দিকে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় থেকে চিঠিটি এসে পৌঁছেছে।

তিনি জানান, চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছে ৭৩ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাসুদুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করা হল।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব (প্রশাসন) কাজী শফিকুল আলম স্বাক্ষরিত বরখাস্তের আদেশে উল্লেখ করা হয়, হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাসুদুল ইসলাম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার স্বাক্ষর জাল করে ৭৩ লাখ টাকা আত্মসাৎ করেছেন। ৩০ এপ্রিল পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। বর্তমানে তিনি পুলিশ হেফাজতে রয়েছেন। এ ঘটনায় তাকে চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হল।

গতকাল রোববার বিকেলে ঘটনার সুষ্ঠু তদন্তে হবিগঞ্জ স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক তওহিদ আহমেদ সজিবকে প্রধান করে পাঁচ সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন জেলা প্রশাসক।

পাঁচ কর্মদিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার কথা রয়েছে।

উল্লেখ্য, মাধবপুর উপজেলায় দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ নির্মাণ প্রকল্পের বিভিন্ন সময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) স্বাক্ষর জাল করে আত্মসাৎ করেন উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাসুদুল ইসলাম।

বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাতেমা তুজ জোহরার নজরে এলে গত ৩০ এপ্রিল তিনি এ বিষয়ে মাধবপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগের প্রেক্ষিতে ওইদিন রাতে চুনারুঘাট উপজেলার বাল্লা সীমান্ত দিয়ে ভারত পালিয়ে যাওয়ার সময় মোবাইল ফোন ট্র্যাকিংয়ের মাধ্যমে তাকে আটক করে পুলিশ।

এ ঘটনায় মামলা দায়েরের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দুর্নীতি দমন কমিশনে (দুদক) প্রেরণ করা হয়েছে।

Facebook Comments
এ জাতীয় আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

স্বত্ব সংরক্ষিত © 2020-2021 চুনারুঘাট
কারিগরি Chunarughat
Don`t copy text!